আমর্হাস্ট স্ট্রিট, বেকবাগানের পর ফের চূড়ান্ত  অমানবিকতা দেখল শহরবাসী। হোম আইসোলেশনে থাকা বৃদ্ধের মৃত্যুর পর প্রায় দিনভোর বাড়িতেই পড়ে থাকল দেহ। এখানেই শেষ নয়, বৃদ্ধের মৃত্যুর পরই এল করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট।

আরও পড়ুন, 'গলায় ছোট ছোট নখের দাগ-শ্বাসরোধ করে খুন', আনন্দপুরের শিশুমৃত্যুতে নতুন মোড়

সূত্রের খবর, সোনারপুরে হোম আইসোলেশনে থাকাকালীনই ওই বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। মৃত্যুর পরই এল করোনা রিপোর্ট পজিটিভ। প্রায় ১৭ ঘণ্টা বাড়িতেই পড়ে থাকল বৃদ্ধের মৃতদেহ। প্রশাসনের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ স্থানীয়দের। স্থানীয় সূত্রে খবর, সম্প্রতি জ্বর হওয়ায় বৃহস্পতিবার নমুনা সংগ্রহ করা হয় ৭১ বছরের ওই রোগীর। হোম আইসোলেশনে থাকাকালীন শনিবার বাড়িতেই মৃত্যু হয় তাঁর। মৃত্যুর পরই রিপোর্ট পজিটিভ আসে। প্রতিবেশীদের দাবি, প্রায় ১৭ ঘণ্টা বাড়িতেই পড়েছিল মৃতদেহ। পরে সৎকারের উদ্যোগ নেয় স্থানীয় প্রশাসন। যদিও পঞ্চায়েত সমিতির তরফে জানানো হয়েছে, ডেথ সার্টিফিকেট পেতে দেরি হওয়ায় এই সমস্যা।

আরও পড়ুন, করোনা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে ফের কলকাতায় আসছে কেন্দ্রীয় দল, তথ্য জোগাড়ে অ্যাপ-র পরামর্শ

প্রসঙ্গত, কলকাতায় এর আগেও রিপোর্ট নেগেটিভ  মৃত্য়ুর পরে  রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। জুলাই এর শুরুতে উত্তর কলকাতার আমর্হাস্ট স্ট্রিট এলাকায় মৃত্যুর পর ২ দিন ধরে বাড়ির ফ্রিজে পড়ে ছিল করোনায় মৃত ব্যক্তির দেহ। একাধিকবার বলেও স্বাস্থ্য দফতর ও পুরসভা থেকে সাহায্য মেলেনি বলে অভিযোগ উঠে এসেছিল। পাশপাশি জুলাই দ্বিতীয় সপ্তাহে  করেয়া থানার অন্তর্গত বেকবাগান এলাকাতেও একই অমানবিক দৃশ্য ফিরে আসে।  নিজের বাড়িতেই মৃত্যু হয় ৮০ বছরের বৃদ্ধার। মৃত্যুর পর ১৪ ঘণ্টা করোনা রোগীর দেহ পড়ে থাকে বাড়িতে। সেইবারও পরিবারের তরফে অভিযোগ এসেছিল পুলিশ এবং স্বাস্থ্য়ভবনের তরফে কোনও সাহায্য় আসেনি।

 

 

করোনায় ফের ১ এসবিআই কর্মীর মৃত্য়ু, মৃতের পরিবারকে চাকরি দেওযার দাবিতে ব্যাঙ্ক কর্মীরা

   পূর্ব ভারতের প্রথম সরকারি প্লাজমা ব্যাঙ্ক-কলকাতা মেডিকেল, করোনা রুখতে প্রস্তুতি তুঙ্গে

  মৃত্যুর পর ২ দিন বাড়ির ফ্রিজে করোনা দেহ, অভিযোগ 'সাহায্য মেলেনি স্বাস্থ্য দফতর-পুরসভার'

  অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বিকলের পরও কোভিড জয়ী ৫৪-র দুধ ব্যবসায়ী, শহরকে দিলেন এক সমুদ্র আত্মবিশ্বাস

কোভিড রোগী ফেরালেই লাইসেন্স বাতিল, হাসপাতালগুলিকে হুঁশিয়ারি রাজ্য়ের