লুকা রোমেরো। মেক্সিকোর ফুটবলার। কী চিন্তে অসুবিধা হচ্ছে। তার পোষাকি নাম মেক্সিকান মেসি। এই নামটা  সকলেরই জানা। এত কম বয়সে মেসির মত নামের একটা তকমা তাকে রাতারাতি সংবাদ শিরোনামে এনে দিয়েছিল। মেক্সিকোয় সবাই তাকে মেসি বলেই চেনে। মেক্সিকোর বাসিন্দা হলেও, তিনি ফুটবল খেলেন আর্জেন্টিনায়। অনেকটা মেসির মতই খেলার স্টাইল, স্কিল, টেকনিক, গতি সবই ভাল। তাই তো  ১৬ বছর বয়স হওয়ার আগেই মেসির সঙ্গে তার তুলনা শুরু করে দিয়েছে ফুটবল বিশ্ব। মেসির মত কিংবদন্তী লুকা রোমেরো হতে পারবে কিনা তা তো ভবিষ্যৎই বলবে। কিন্তু কম বয়সেই মেসির মতো রেকর্ড ভাঙা শুরু করে দিয়েছেন মেক্সিকান মেসি।

আরও পড়ুনঃমাস্ক ও শতবর্ষের স্যানিটাইজারের উদ্বোধন করল ইষ্টবেঙ্গল ক্লাব

স্প্যানিশ লা লিগার ইতিহাসে সবচেয়ে কম বয়সী ফুটবলার হিসেবে মাঠে নামার রেকর্ড গড়ল সে। রিয়াল মায়োর্কার হয়ে সবচেয়ে কম বয়সী হিসেবে মাঠে নামল রোমেরো। এর আগে  সেল্টা ভিগোর প্রাক্তন ডিফেন্ডার স্যানসন লা লিগার সর্ব কনিষ্ঠ ফুটবলার ছিল। তার অভিষেক হয়েছিল ১৫ বছর ২৫৫ দিনে। ১৯৩৯ সালের সেই ঘটনার ৮০ বছর পর রেকর্ড ভাঙলেন লুকা রোমেরো। মাত্র  ১৫ বছর ২১৯ দিনে লা লিগার সর্ব কনিষ্ঠ প্লেয়ার হিসেবে মাঠে নামলেন তিনি। একইসঙ্গে নাম লেখালেন ইতিহাসের পাতায়। 

আরও পড়ুনঃভারতের প্রথম বিশ্বজয়ের ৩৭ বছর, ফিরে দেখা গৌরবের ইতিহাস

আরও পড়ুনঃপ্রথম বিশ্বকাপ জয়ের ৩৭ বছর, ভারতীয় টিমকে সেলাম ৮৩ ছবির টিমের

বুধবার লা লিগার গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে রিয়াল মায়োর্কার বিরুদ্ধে ২-০ গোলে ম্য়াচ জেতে রিয়াল মাদ্রিদ। একইসঙ্গে ফের লিগ টেবিলের শীর্ষস্থান দখল করে  জিনেদিন জিদানের দল। ম্যাচের ৮৩ মিনিটে পরিবর্ত হিসেবে মাঠে নেমে ইতিহাস গড়েন মেক্সিকান মেসি। অভিষেক ম্যাচ হারতে হলেও, হাসল ছাড়তে নারাজ রোমেরো। এর আগে আর্জেন্টিনার অনূর্ধ্ব ১৫ দলের হয়ে খেলেছিল রোমেরো। গতবছর অনূর্ধ্ব ১৭ দলেও ডাক পেয়েছিল মেক্সিকান মেসিএই ছোট ছোট অভিজ্ঞতা থেকে বড় হতে চান রোমেরো। ভবিষ্যতে বড় ক্লাব ও আর্জেন্টিনা দলেও খেলার স্বপ্নে দেখেন মেক্সিকান মেসি।