রাজ্যের আমফান বিধ্বস্ত দুটি জেলা দুদিন ধরে পরিদর্শন করেছেন কেন্দ্রের পাঠানো প্রতিনিধি দল। শনিবার বিকেলেই তাঁরা নবান্নে যান রাজ্যের মুখ্যসচিব ও স্বরাষ্ট্রসচিবের সঙ্গে দেখা করতে। সামগ্রিক পরিস্থিতি নিয়ে দুপক্ষের বিস্তারিত আলোচনা হয়। নবান্ন সূত্রের খবর, এই বৈঠকে কেন্দ্রীয় দলের কাছে প্রায় ১ লাখ আড়াই হাজার কোটি টাকাও বেশি ক্ষতি হয়েছে বলে হিসেব দিয়েছে রাজ্য সরকার। 

আরও পড়ুন, ৮ জুন থেকে খুলছে কলকাতা মেডিক্যালের আউটডোর, কোভিড হাসপাতাল হওয়ায় সংক্রমণ রুখতে বৈঠক


বৃহস্পতিবার, রাজ্যে এসে শুক্রবার দফায় দফায় দুই ২৪ পরগনায় আমফান বিধ্বস্ত বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের ৭ সদস্য়। উত্তর ২৪ পরগনার বসিরহাট থেকে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং, বহু জায়গাতেই গিয়েছেন তাঁরা। শনিবার সকালেও প্রায় সারপ্রাইজ ভিজিটের মতো তাঁরা চলে গিয়ছিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনার মথুরাপুর ১ নং ব্লকের কৃষ্ণচন্দ্রপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের কাটানদিঘি গ্রামে। বিধ্বস্ত এলাকা ঘুরে দেখে কেন্দ্রীয় দলের ৭ সদস্য সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথাও বলেন। উল্লেখ্য়, এর আগে ঘূর্ণিঝড় আমফান রাজ্যে আছড়ে পড়ার ৪৮ ঘন্টার মধ্যেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি পরিদর্শনে আসেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে সঙ্গে নিয়ে আকাশপথে দুই ২৪ পরগণা পরিদর্শন করেন। এরপরই আমফান পরবর্তী ত্রাণ ও উদ্ধারকার্যের জন্য রাজ্য সরকারকে ১০০০ কোটি টাকার আপাতকালীন সাহায্য ঘোষণা করেন। সেই টাকা রাজ্য়ে পেয়েও গিয়েছে। যদিও পরবর্তী সময়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বারবার দাবি করেছেন ওই অঙ্ক অনেক কম। কারণ ঘূর্ণিঝড় আমফান মূলত উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগণাকে তছনছ করে দিয়েছে। সার্বিক ক্ষতির পরিমার প্রায় এক লক্ষ কোটি টাকা। এবার সরকারি ভাবেই নবান্নের তরফে কেন্দ্রীয় দলের কাছে  ক্ষয়ক্ষতির হিসেব পেশ করল। 

আরও পড়ুন, করোনা আবহে সুরজিৎ কর পুরকায়স্থের প্রাক্তন স্ত্রী-শাশুড়ির দেহ উদ্ধার, তদন্তে পুলিশ


অপরদিকে,  কেন্দ্রের তরফে কী ব্যবস্থা নেওয়া হয় তার দিকেই তাকিয়ে রয়েছে বাংলার রাজনৈতিক মহল। কারণ এদিনই রাজ্যের বিরোধী দলগুলোর প্রতিনিধিরা আলাদা আলাদা করে কেন্দ্রীয় দলের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। তাঁদের দাবি, কেন্দ্রের দেওয়া টাকা যেন অন্য খাতে খরচ করতে না পারে রাজ্য সরকার। প্রয়োজনে নোডাল অফিসার নিয়োগ করুক কেন্দ্র।

 

 

 পিটিএসে নতুন করে আক্রান্ত আরও ৮, করোনা মুক্ত হয়ে কাজে ফিরলেন ১০০ পুলিশ কর্মী

বাংলাদেশ ফেরৎ ২ যাত্রী করোনা পজিটিভ, কোয়ারান্টিনের পর আক্রান্ত হওয়ায় চিন্তায় স্বাস্থ্য দফতর

 কলকাতা মেডিক্যালের ছাদের কার্নিশে বসে করোনা রোগী, সামলাতে গিয়ে নাজেহাল কর্তৃপক্ষ

করোনা মোকাবিলায় বড়সড় উদ্য়োগ, পরিষেবা বাড়াতে ৫০০ ডাক্তার-নার্স নিচ্ছে রাজ্য

দেহ রাখার জায়গা না থাকায় ডিপ ফ্রিজ বসছে মেডিকেলের মর্গে, মৃতদেহ 'ম্যানেজমেন্ট'-এ নিয়োগ অ্যাসিস্ট্যান্ট