Asianet News BanglaAsianet News Bangla

মুখ ভার করে তাকিয়ে কলকাতার আকাশ, বৃষ্টির পূর্বাভাস পাহাড়ে-গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে

  • আদ্রতা জনিত কারণে অস্বস্তি অনেকটাই বেড়েছে। 
  •  হালকা থেকে মাঝারি দু-এক পশলা বৃষ্টি গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে 
  • দার্জিলিং সহ পাঁচ জেলায় শুক্রবার অবধি টানা বৃষ্টি 
  • দক্ষিণবঙ্গে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা পশ্চিমের জেলাগুলিতে 
Weather update on 16 July in  Bengal RT
Author
Kolkata, First Published Jul 16, 2020, 5:50 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

বৃহস্পতিবার শহর ও শহরতলির আকাশ সারাদিন মেঘলা ছিল। আদ্রতা জনিত কারণে অস্বস্তি অনেকটাই বেড়েছে। হাওয়া অফিস জানিয়েছে, উত্তরবঙ্গে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির সম্ভাবনা। দার্জিলিং সহ পাঁচ  জেলায় শুক্রবার পর্যন্ত দু-এক পশলা বিক্ষিপ্ত  বৃষ্টির সম্ভাবনা। শনিবার থেকে বৃষ্টি বাড়তে পারে। কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা সপ্তাহান্তে। দক্ষিণবঙ্গে  বিক্ষিপ্ত ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা পশ্চিমের জেলাগুলিতে। এদিকে আদ্রতাজনিত অস্বস্তির  সঙ্গে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিমাঞ্চলে দু-এক পশলা ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা।

আরও পড়ুন, ঐতিহাসিক মুহূর্তের সাক্ষী মহানগর, কলকাতা-বাংলাদেশ হয়ে ত্রিপুরায় পাড়ি পন্যবাহী জাহাজের
 
হাওয়া অফিস সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার  কলকাতায়  সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৭.০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৩.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৯৫ শতাংশ। আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ ন্যূনতম ৭৩ শতাংশ। বুধবার  কলকাতায়  সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৭.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৩.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৯২ শতাংশ। আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ ন্যূনতম ৬৫ শতাংশ। রবিবার  কলকাতায়  সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৫.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি কম।   এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৪.০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। স্বাভাবিকের থেকে দুই ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৯৩ শতাংশ। আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ ন্যূনতম ৭৩ শতাংশ।  

আরও পড়ুন, দিল্লি থেকে দিব্য়ি এল করোনা পজিটিভ যুবক, বিমানবন্দরে 'রিপোর্ট' দেখাতেই বিপাকে আধিকারিকরা

মৌসুমী অক্ষরেখার  উত্তরবঙ্গ থেকে সরে গেছে। উত্তরবঙ্গে প্রতিবারই অতিভারী বৃষ্টির পরিমাণ কমেছে। মৌসুমী অক্ষরেখা  অমৃতসর, চন্ডিগড়, জামশেদপুর এরপর দীঘা হয়ে  বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত। বঙ্গোপসাগর ও সংলগ্ন গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপর রয়েছে ঘূর্ণাবর্ত। আদ্রতাজনিত অস্বস্তির  সঙ্গে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিমাঞ্চলে দু-এক পশলা ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। উত্তরবঙ্গে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির সম্ভাবনা। দার্জিলিং সহ পাঁচ  জেলায় শুক্রবার পর্যন্ত দু-এক পশলা বিক্ষিপ্ত ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। শনিবার থেকে বৃষ্টি বাড়তে পারে। কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা সপ্তাহান্তে। দক্ষিণবঙ্গে  বিক্ষিপ্ত ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা পশ্চিমের জেলাগুলিতে। ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া জেলায় দু এক পশলা ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। উল্লেখ্য, গত সপ্তাহের শুক্রবার থেকে ভারী বৃষ্টিপাতের জেরে উত্তরবঙ্গের তোর্সা ও কালজানি নদীতে জলস্তর বেড়েছে। অবিরাম বৃষ্টির জেরে জলমগ্ন ছিল ডুয়ার্সের একাধিক চা বাগান। নিকাশী ব্যবস্থা ভেঙে পড়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। তবে এখন উত্তরবঙ্গে অতিভারী বৃষ্টির পরিমাণ কমেছে। কলকাতা সহ গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের জেলায় বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টির সম্ভাবনা। হালকা থেকে মাঝারি দু-এক পশলা বৃষ্টি হতে পারে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে।

 

 

   পূর্ব ভারতের প্রথম সরকারি প্লাজমা ব্যাঙ্ক-কলকাতা মেডিকেল, করোনা রুখতে প্রস্তুতি তুঙ্গে

  মৃত্যুর পর ২ দিন বাড়ির ফ্রিজে করোনা দেহ, অভিযোগ 'সাহায্য মেলেনি স্বাস্থ্য দফতর-পুরসভার'

 করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু এক সেনা কর্তার, ফোর্ট উইলিয়ামের শোকের ছায়া

  অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বিকলের পরও কোভিড জয়ী ৫৪-র দুধ ব্যবসায়ী, শহরকে দিলেন এক সমুদ্র আত্মবিশ্বাস

কোভিড রোগী ফেরালেই লাইসেন্স বাতিল, হাসপাতালগুলিকে হুঁশিয়ারি রাজ্য়ের

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios