১ জুলাই থেকে খুলতে চলেছে কালীঘাট মন্দির। মন্দির খোলার সিদ্ধান্তে খুশি ভক্তরা।  তাই রথযাত্রার পরে বিপত্তারিণী পুজো উপলক্ষে মন্দির খোলার কোনও সুযোগ নেই। পুজোর জন্য কোনও রকম সামগ্রী আনা যাবে না। প্রত্যেককে ব্যবহার করতে হবে মাস্ক-স্যানিটাউজার।  তবে মন্দির খুললেও গর্ভগৃহে প্রবেশের অনুমতি নেই।

আরও পড়ুন, আরও একবার মৃত্যুর মুখোমুখি শহর, 'অভাবে-অবসাদে' বেহালায় 'আত্মহত্যা' এক ব্যক্তির

 
রাজ্য সরকারের অনুমোদন থাকলেও জুনের ৩০ তারিখ পর্যন্ত বন্ধ থাকবে কালীঘাট মন্দির।তাই  ১ জুলাই থেকে মন্দির খোলার ফলে রথযাত্রার পরে বিপত্তারিণী পুজো উপলক্ষে মন্দির খোলার কোনও সুযোগ নেই। কালীঘাট মন্দির কমিটি জানিয়েছে, ৩০ জুন পর্যন্ত লকডাউন থাকায় তার আগে মন্দির না খোলার ব্যাপারে বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।  মন্দিরের তরফে বলা হয়েছে , আপাতত সকাল ৭ টা থেকে বেলা ১২ টা ও বিকেল ৪ টে থেকে সন্ধে ৭ টা পর্যন্ত খোলা থাকবে মন্দির। একসঙ্গে ১০ জনের বেশি প্রবেশ করতে পারবেন না। ভক্তদের প্রত্যেককে ব্যবহার করতে হবে মাস্ক, স্যানিটাউজার। সতকর্তামূলক ব্যবস্থা হিসেবে মন্দির চত্বরে ইতিমধ্যেই বসানো হয়েছে তিনটি স্যানিটাইজেশন টানেল। তার মধ্যে দিয়েই ঢুকতে হবে দর্শনার্থীদের। 

আরও পড়ুন, রিজেন্টপার্কের তরুণী খুনে হাড় হিম করা তথ্য, প্রেমিকের সম্বন্ধে কী জেনে ফেলেছিল প্রিয়াঙ্কা


অপরদিকে, মন্দিরে প্রবেশের অনুমতি মিললেও আপাতত গর্ভগৃহে যেতে পারবেন না ভক্তরা। পুজো দেওয়ার জন্য কোনও রকম পুজোর সামগ্রী আনা যাবে না। তবে সাধারণভাবে রথযাত্রার পর বিপত্তারিণী পুজো দেওয়ার জন্য ভক্তদের ঢল নামে কালীঘাটে। এ বার সেই পুজোর জন্যও মন্দির খোলার কোনও সুযোগ নেই।

আরও পড়ুন, ফের অঘটন, দক্ষিণ চীন সাগরে তেলবাহী ট্যাঙ্কার জাহাজ থেকে রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ বাঙালি ইঞ্জিনিয়ার

 

 

 কলকাতায় একদিনে চিহ্নিত প্রায় ২০০ বাড়ি, কনটেইনমেন্ট জোন বৃদ্ধির কারণ বললেন মুখ্যসচিব

 করোনা আক্রান্ত বেলুড়ের এক মহারাজ, মঠ খোলার দিন আপাতত অনিশ্চিত

করোনায় সুরক্ষাবিধি নিয়ে বিক্ষোভের জের, বদলি ১৩ পুলিশকর্মীর

করোনা আক্রান্ত নিজাম প্যালেসের এক সিবিআই আধিকারিক, স্যানিটাইজ করা হল পুরো অফিস

করোনা আবহে সুরজিৎ কর পুরকায়স্থের প্রাক্তন স্ত্রী-শাশুড়ির দেহ উদ্ধার, তদন্তে পুলিশ

দেহ রাখার জায়গা না থাকায় ডিপ ফ্রিজ বসছে মেডিকেলের মর্গে, মৃতদেহ 'ম্যানেজমেন্ট'-এ নিয়োগ অ্যাসি